ডিসকাশন প্রজেক্ট - ডিসকাশন প্রজেক্ট
প্রতিষ্ঠার ২৬ বছরে ‘ডিসকাশন প্রজেক্ট’। সকল সদস্য-শুভানুধ্যায়ীদের সংস্থার পক্ষ থেকে আন্তরিক শুভেচ্ছা!
ঢাকা, নভেম্বর ২০, ২০১৮, ৫ অগ্রহায়ন ১৪২৫, স্থানীয় সময়: ২:০০ am

মহাবৃত্ত



পরবর্তী বিজ্ঞান অনুষ্ঠান

৬৫ তম ওপেন ডিসকাশন: ওরা কেন আসেনি। তারিখ: ০১ অক্টোবর ২০১৬, স্থান: বিশ্ব সাহিত্য কেন্দ্র মিলনায়তন, সময়: বিকাল ৫.৩০। বিস্তারিত তথ্যের জন্য যোগাযোগ: 016 71 948049

অনলাইন প্রশ্নোত্তর পর্ব

প্রিয় পাঠক, পদার্থবিজ্ঞান সংক্রান্ত আপনার যেকোন প্রশ্ন পাঠাতে পারেন আমাদেরকে। আমরা যথাযথ বিশেষজ্ঞদের সহায়তার আপনার প্রশ্নের উত্তর প্রদান করব।

বিজ্ঞান বক্তা: আসিফ

বিজ্ঞান বক্তা: আসিফ

বিজ্ঞান বক্তা: আসিফ

স্মরণীয় ও বরণীয়

রামানুজন: গণিতবিদদের গণিতবিদ

রামানুজন: গণিতবিদদের গণিতবিদ

গ্যালিলিও গ্যালিলি: বিজ্ঞানের ভিত্তি গড়েছেন যিনি

গ্যালিলিও গ্যালিলি: বিজ্ঞানের ভিত্তি গড়েছেন যিনি

কার্ল সাগান : এক মহাজাগতিক পথিক

কার্ল সাগান : এক মহাজাগতিক পথিক

ডিসকাশন প্রজেক্ট


সামাজিক উন্নয়ন ও মানবিক সমাজ গড়ার লক্ষ্যে এগিয়ে যাবার জন্য মানবাধিকার প্রতিষ্ঠা দরকার, সেই চেতনা এনে দিতে পারে বিজ্ঞান। মানুষকে বৈজ্ঞানিক পদ্ধতি বোঝানো গেলে মানুষ বুঝতে পারবে তার অবস্থান, বুঝতে পারবে তার প্রয়োজনটা। তাকে আলাদা করে কুসংস্কারের ব্যাপারে শিক্ষা দেবার দরকার নেই, উন্নয়নের আবশ্যিকতা বলে দেয়ার দরকার নেই। বিজ্ঞান-প্রযুক্তিগত প্রচারণা/ধারণার মাধ্যমে সামাজিক উন্নয়নের চেতনা ও ধারণা বিকশিত করা যত সহজ ও বাস্তবসম্মতভাবে সম্ভব, তা আর কোনভাবেই নয়। এই অবস্থান ও বিবেচনা থেকে ডিসকাশন প্রজেক্ট সক্রিয় ও তৎপর।

ডিসকাশন প্রজেক্ট অতীতের জ্ঞান ধারাকে অনুসরণ করে একটি মুক্ত জ্ঞান-চর্চার পরিবেশ গড়ে তোলার চেষ্টা করছে। ডিসকাশন প্রজেক্ট-এর সদস্যরা ছড়িয়ে রয়েছে চট্টগ্রাম, সন্দ্বীপ থেকে কুড়িগ্রাম, নীলফামারী, চিলমারি পর্যন্ত। সংস্থার সদস্যদের বিজ্ঞান ও সভ্যতা বিষয়ক বিভিন্ন লেখা ইতোমধ্যে দেশের প্রায় সবকটি জাতীয় দৈনিক, সাপ্তাহিক ও পাক্ষিক পত্রিকায় প্রকাশিত হয়েছে। আন্তর্জাতিক গণমাধ্যম জার্মান রেডিও সেন্টার ডয়েচে ভিলে এবং রেডিও ভেরিতাস, ফিলিপাইন থেকে ডিসকাশন প্রজেক্ট-এর উপর প্রতিবেদনসহ বিজ্ঞানবক্তা আসিফের সাক্ষাৎকার প্রচারিত হয়। জনপ্রিয় বিজ্ঞান বিষয়ক বই পড়া নয় বরং গোয়েটিংগেন, আলেক্সান্দ্রিয়ার মতো জ্ঞানকেন্দ্র গড়ে তোলাই আমাদের স্বপ্ন। আর কিছু না হোক সমাজের এ বিশৃঙ্খলা, হতাশার মাঝে বিজ্ঞানের চমৎকার পরিবেশ সৃষ্টির প্রচেষ্টাই বা কম কি? বিজ্ঞান-চর্চার এ আন্দোলনে জড়িত হওয়ার আমন্ত্রণ রইল।